Foto

Please Share If You Like This News

Buffer Digg Facebook Google LinkedIn Pinterest Print Reddit StumbleUpon Tumblr Twitter VK Yummly

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে প্রার্থিতা ফিরে পেতে নির্বাচন কমিশনে আপিল করেছেন বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। আজ বুধবার তাঁর পক্ষে তিন আইনজীবী তিন সংসদীয় আসনের জন্য এই আপিল করেন।


নির্বাচনে প্রার্থিতা ফিরে পেতে গত দুই দিনে ৩১৮ জন প্রার্থী রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে ইসিতে আপিল করেন। আজ আপিলের শেষ দিনে খালেদা জিয়ার প্রার্থিতা ফিরে পেতে আবেদন হলো।


সংসদ নির্বাচনে তিনটি আসনেই বিএনপির চেয়ারপারসন কারাবন্দী খালেদা জিয়ার মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। গত রোববার মনোনয়ন বাছাইয়ের সময় দুই বছরের বেশি দণ্ড থাকায় গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ অনুযায়ী মনোনয়নপত্র বাতিল করেন সংশ্লিষ্ট রিটার্নিং কর্মকর্তারা। ফেনী-১ আসন এবং ‘জিয়া পরিবারের আসন’ হিসেবে পরিচিত বগুড়া-৬ (সদর) ও বগুড়া-৭ আসনে খালেদা জিয়ার মনোনয়নপত্র বাতিল হয়। এর মধ্যে বগুড়া-৭ আসনে খালেদা জিয়ার বিকল্প প্রার্থী মোরশেদ মিল্টনেরও মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। তবে বাকি দুটো আসনে খালেদা জিয়ার বিকল্প প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করেছেন রিটার্নিং কর্মকর্তা।

বিএনপি নেতা ও আইনজীবী কায়সার কামাল আপিল শেষে আজ রাজধানীর আগারগাঁওয়ের নির্বাচন ভবনে সাংবাদিকদের বলেন, ‘অন্যায়ভাবে খালেদা জিয়ার প্রার্থিতা বাতিল করা হয়েছে। যদি নির্বাচন কমিশন নিরপেক্ষভাবে বিচার করে, তাহলে খালেদা জিয়ার মনোনয়নপত্র বৈধ হবে বলে আমরা আশা করছি।’


কায়সার কামাল আরও বলেন, জাতি একটা অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের অপেক্ষা করছে। খালেদা জিয়া ছাড়া নির্বাচন হবে প্রহসনের নির্বাচন।

bottom