Foto

Please Share If You Like This News

Buffer Digg Facebook Google LinkedIn Pinterest Print Reddit StumbleUpon Tumblr Twitter VK Yummly

কেন্দ্রে মোট ভোট দুই হাজার ৭৫২টি। ভোট পড়েছে ২ হাজার ৫১৯টি। এর মধ্যে বাতিল হয়েছে ৮টি। বাকি দুই হাজার ৫১১ ভোটের সবই পড়েছে নৌকা প্রতীকে।


এখানে ধানের শীষের প্রার্থীসহ আরও চারজন প্রার্থী থাকলেও তাঁরা কোনো ভোট পাননি। এই কেন্দ্রে নৌকা ছাড়া অন্য কোনো প্রতীকের পোলিং এজেন্টও ছিলেন না বলে জানা গেছে। সুনামগঞ্জ-১ আসনের (ধরমপাশা, তাহিরপুর, জামালগঞ্জ) জামালগঞ্জ উপজেলার লম্বাবাক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়র কেন্দ্রের ফল এটি। জামালগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাচনের সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা শামিম আল ইমরান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। ওই কেন্দ্রের প্রিসাইডিং কর্মকর্তা গোপেন্দ্র চন্দ্র দাস বলেছেন,‘আমি কি করব বলেন, ধানের শীষের কোনো ব্যালট তো পাইনি। গুণে দেখি সব ভোটই পড়েছে নৌকা মার্কায়।’ অন্য কোনো প্রার্থীর পোলিং এজেন্ট না থাকার বিষয়ে গোপেন্দ্র চন্দ্র দাস বলেন,‘ধানের শীষের এজেন্ট ছিল না ঠিক। তবে অন্য প্রার্থীর ছিল, তারাও কিছুক্ষণ থেকে চলে গেছে।’ এই উপজেলার আরেকটি কেন্দ্রে ধানের শীষ প্রতীকে কোনো ভোট পড়েনি। ওই কেন্দ্র হলো আলীপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। এই কেন্দ্রে ২ হাজার ৮ ভোটের মধ্যে ভোট পড়েছে ১ হাজার ৮৮৭টি। এর মধ্যে নৌকায় পড়েছে ১ হাজার ৮৪৯টি। বাকি ৩৮ ভোট পেয়েছেন অন্যরা। তবে ধানের শীষে কোনো ভোট পড়েনি। এই আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন পাঁচজন। এর মধ্যে আওয়ামী লীগের প্রার্থী ছিলেন বর্তমান সাংসদ মোয়াজ্জেম হোসেন রতন এবং বিএনপির প্রার্থী ছিলেন সাবেক সাংসদ নজির হোসেন।

Facebook Comments

More category >> " Politics News "

bottom