Foto

Please Share If You Like This News

Buffer Digg Facebook Google LinkedIn Pinterest Print Reddit StumbleUpon Tumblr Twitter VK Yummly

বাংলাদেশ ক্রিকেটের পাঁচ তারা মাশরাফি, সাকিব, তামিম, মুশফিক এবং মাহমুদুল্লাহ। এর মধ্যে সাকিব, তামিম ও মুশফিকের জাতীয় দলের জার্সি গায়ে চাপানো প্রায় একই সময়ে। বোলার সাকিবকে বাদ দিয়ে ব্যাটসম্যান হিসেবে এই তিনজন ম্যাচ খেলা, রান করার দিক থেকে একে অপরের আগে-পিছে ছুটছেন। পিছনে থাকলেও কক্ষপথে আছেন মাহমুদুল্লাহও।


এদের মধ্যে বাংলাদেশ দলের হয়ে একমাত্র দুইশ’ ওয়ানডে খেলার মাইলফলক ছুঁয়েছেন বাংলাদেশ ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি। ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে দুইশ’ ওয়ানডে ম্যাচ পূর্ণ করেন তিনি। এবার মুশফিকের সামনে ওই মাইলফলক। ক্রাইস্টচার্চে শনিবার ভোর চারটায় তিনি মাঠে নামলে ওয়ানডে ক্যারিয়ারে দুইশ’ ম্যাচ খেলার কৃতিত্ব গড়ে ফেলবেন।

এশিয়া কাপে ইনজুরিতে পড়ে জিম্বাবুয়ে সিরিজ মিস করেন সাকিব। এরপর নিউজিল্যান্ডেও আসতে পারেননি তিনি। না হলে তারও দুইশ’ ওয়ানডে খেলার রেকর্ড ছোঁয়া হয়ে যেত। সাকিব ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছেন ১৯৫টি। তামিম পিছিয়ে আছেন কিছুটা। কিন্তু খুব বেশি না। তিনিও এশিয়া কাপ (এক ম্যাচ বাদে) এবং জিম্বাবুয়ে সিরিজ মিস করেন। না হলে দুইশ’ তারও দুয়ারে থাকতে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে। তামিম ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছেন ১৮৭টি।

আর মাহমুদুল্লাহর ওয়ানডে ম্যাচে মাঠে নামা হয়েছে ১৬৯ বার। মুশফিক তাই বাংলাদেশের দ্বিতীয় ক্রিকেটার হিসেবে দুইশ’ ওয়ানডে খেলার কৃতিত্ব অর্জন করছেন। ক’দিন আগে এই নিউজিল্যান্ডে ভারতীয় ওপেনার রোহিত শর্মা তার দুইশ’ ওয়ানডে ম্যাচ খেলেছেন। ম্যাচে নেতৃত্বও দেন তিনি। কিন্তু সঙ্গী ছিল হার। মুশফিকের মাইলফলকের ম্যাচ হার নাকি জিত দিয়ে শেষ হয় সেটাই এখন দেখার।

bottom